‘কাউকেই ঠকাতে পারবো না’, দুই প্রেমিকাকে বিয়ে করলেন যুবক!

একজন নয়, এক সঙ্গে দু’দুজন নারীকে বিয়ে করলেন ২৪ বছর বয়সী এক যুবক। এমন ঘটনা ঘটেছে ভারতের ছত্তিশগড়ের বস্তার জেলায়। বিয়ের এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পরিবারের লোকজন থেকে শুরু করে গ্রামবাসীরা। আর যুবকের কীর্তি দেখে অবাক হয়েছেন সকলেই।

চন্দু মৌর্য নামে ওই যুবক জানান যে দুই তরুণীই তাকে ভালবাসে। তাই তিনি কাউকেই ঠকাতে পারবেন না। তাই দু’জনকেই একসঙ্গে বিয়ে করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। চন্দু আরো জানান, দু’জনই তাঁর সঙ্গে সারাজীবন থাকতে রাজি আছেন। ফলে দুই স্ত্রী নিয়ে তার বিবাহিত জীবন আরও সুন্দর হবে বলেই আশাবাদী বছর চব্বিশের যুবক।

কিন্তু দুই তরুণীই কীভাবে তাঁর প্রেমে পড়ে গেলেন? জানা গেছে, একবার বস্তারের তোকপাল এলাকায় একটি ইলেকট্রিকের পোল লাগাতে যায় চন্দু। সেখানে ২১ বছরের সুন্দরী কাশ্যপের প্রেমে পড়েন পেশায় দিনমজুর ও কৃষিকাজের সঙ্গে যুক্ত যুবক। দু’জনে বিয়ে করবেন বলে সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু বছর ঘুরতে না ঘুরতেই তার গ্রাম তিক্রালঘনায় একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে হাসিনা বাঘেল (২০) নামে অন্য এক তরুণীর প্রেমে পড়ে যায় চন্দু। সেই টানও অগ্রাহ্য করতে পারেন না।

চন্দুর দাবি, তার প্রেমিকা রয়েছে জেনেও হাসিনা তার সঙ্গে সম্পর্কে জড়াতে চায়। এরপর চন্দু তার দুই প্রেমিকার মধ্যে আলাপ-পরিচয় করিয়ে দেন। তিনজন একসঙ্গে চন্দুর বাড়িতে তার পরিবারের সঙ্গে থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তবে বিয়ের অনুষ্ঠানে হাসিনার পরিবারের লোকজন উপস্থিত থাকলেও ছিলেন না সুন্দরীর তরফের কেউ। গত ৫ জানুয়ারি বিয়ে হয় তিনজনের।

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *