সৌদির খেজুর চাষে সফল উজিরপুরের মামুন হাওলাদার

দীর্ঘ দিন মধ্যপ্রাচ্য সৌদি আরবে প্রবাসী জীবনে চাকরি করার সুবাদে নিজ জন্মস্থানের মাটিতে সৌদির সুস্বাদু খেজুর চাষাবাদ করার মনের ভিতর আগ্রহ জন্ম নেয় বরিশাল জেলার উজিরপুর উপজেলার বামরাইল ইউনিয়নের ধামসর গ্রামের মকবুল হাওলাদারের পুত্র মামুন হাওলাদার (৪০) এর মনে।

তার মনের চিন্তার চেষ্টায় তিনি সফল হয়েছেন। তার খেজুর বাগানে বেশ কয়েকটি গাছে খেজুর ফলন হয়েছে। যা সৌদির খেজুরের মত সু-স্বাদু। মামুন হাওলাদার ১৮ বছরের সৌদির প্রবাস জীবনের বিভিন্ন ভাবে খেজুরের চারা (ট্যাম) যত্ম সহকারে দেশে পাঠিয়ে চাষাবাদের শুরু করেন।

২০১৫ সালে তার প্রবাস জীবনের ইতি টেনে খেজুর চাষাবাদের স্বপ্ন নিয়ে দেশে ফিরে আসে মামুন। এরপর নিজের বাড়ির আঙ্গিনায় খেজুর চারা রোপন করে যত্ম করে একটি বাগান করেন। ৫ বছরে ওই বাগানে প্রায় ১০ লাখ টাকা ব্যয় করে নানা প্রচেষ্টায় বাগানে ছয় মাসআগে খেজুরের ফলন আসে। বর্তমানে বেশ বড় আকারে খেজুর রয়েছে বাগানের বেশ কয়েকটি গাছে। যা খাওয়ার উপযোগী হয়েছে।

সৌদি আরবের উন্নত জাতের খেজুর ফলন হওয়ার খবর প্রকাশ পাওয়ায় বিভিন্ন এলাকা থেকে উৎসুক মানুষ ভিড় জমায় মামুনের বাড়িতে। খেজুর চাষি মামুন হাওলাদার জানিয়েছে, তিনি সৌদি আরবে চাকুরি করা অবস্থায় দেশের মাটিতে খেজুর ফলনের স্বপ্ন দেখেছেন। নানা প্রতিকুলতার মধ্যে অবশেষে তিনি সফল হয়েছেন।

দক্ষিণাঞ্চলে সৌদি আরবের খেজুর চাষাবাদে তিনিই সফল ব্যক্তি। বাগানে বর্তমানে ২’শত টির মতো খেজুর গাছ রয়েছে। ওই গাছের সাথে আরও নতুন করে ৭০টি চারা (ট্যাম্প) জন্ম নিয়েছে। কিছুদিন আগে খেজুর বাগান থেকে ৪০টির মত চারা গাছ বিক্রি হয়েছে। বাগানে বেশ কয়েকটি গাছে খাওয়ার উপযোগী খেজুর ফলন হয়েছে। যার বর্তমান বাজারে বিক্রয়মূল্য প্রায় ৫০ হাজার টাকা।

মামুন আরও জানান. তার মত করে সৌদির খেজুর চাষাবাদে আগ্রহী হলে দেশের মাটিতেই সৌদি আরবের সুস্বাদু খেজুর উৎপাদন করা সম্ভব। বাগানের উৎপাদিত খেজুর চারা যে কেউ ক্রয় করতে চাইলে কিনতে পারবেন। তিনি আরও জানান, বাগানে একসাথে খেজুর উৎপাদন শুরু হলে তিনি খেজুর বিক্রি করে বছরেই প্রায় ১০ লাখ টাকা আয় করতে পারবেন।

এ ব্যাপারে উজিরপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জাকির হোসেন তালুকদার জানিয়েছেন, বরিশাল অঞ্চলের মাটি বেশ ভাল, তাই উজিরপুরের ধামসর গ্রামে মামুন সৌদি আরবের খেজুর চাষাবাদে সফল হয়েছেন। তিনি কৃষি বিভাগের সহায়তা চাইলে তাকে যে কোন সহায়তা করা হবে। তার বাগানের উৎপাদিত খেজুর সৌদির খেজুরের মত। স্বাদও একই রকম।

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *